lifestyle
 01 Oct 19, 07:40 PM
 86             0

পেঁয়াজ ছাড়াও রান্না হবে সুস্বাদু ও মজাদার !!

পেঁয়াজ ছাড়াও রান্না হবে সুস্বাদু ও মজাদার !!

লাইফস্টাইল ডেস্কঃ আমাদের দেশীয় প্রতিটি খাবার তৈরিতেই অবধারিতভাবে ব্যবহার করা হয় পেঁয়াজ। উদ্ভিজ এই উপাদানটি ব্যতীত খাবারের স্বাদ যেন অপূর্ণই থেকে যায়, সেটা হোক সাধারণ পাতলা ডাল কিংবা রাজকীয় কালাভুনা। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে পেঁয়াজের লাগামছাড়া দাম দেখে হতাশ হয়ে পড়ছেন অনেকেই। কম পেঁয়াজে রান্না মজাদার হয় নাকি? শুধু অল্প পেঁয়াজ নয়, পেঁয়াজ ছাড়াও রান্না মজাদার ও সুস্বাদু হয়। সেক্ষেত্রে প্রয়োজন সঠিক কৌশলটি জেনে রাখা। বাজারের এই অস্থিতিশীল অবস্থায় আপনার খরচকে সাধ্যের মধ্যে রাখার চেষ্টায় আজকের ফিচারে জানানো হলো, সম্পূর্ণ পেঁয়াজ ছাড়াও কীভাবে রান্না মুখরোচক করা যাবে।

১. বেশিরভাগ রান্নায় পেঁয়াজ ব্যবহার না করলেও স্বাদের খুব একটা পরিবর্তন আসবে না। সেক্ষেত্রে রসুনের ব্যবহারের দিকে একটু জোর দিতে হবে। গরম তেলে রসুন ও শুকনা মরিচের ফোঁড়ন দারুণ সুবাস তৈরি করে। যা এমনিতেই রান্নাকে সুস্বাদু করে তুলবে। ডাল কিংবা বিভিন্ন ধরনের ভাজি এভাবেই তৈরি করা যাবে।


২. পেঁয়াজের বদলে স্প্রিং অনিয়ন কিংবা পেঁয়াজ কলি ব্যবহারেও পেঁয়াজের স্বাদ ও গন্ধ পাওয়া যাবে। খাবারে পেঁয়াজের পাশাপাশি কিছুটা ভিন্ন গন্ধ আনতে স্প্রিং অনিয়ন ব্যবহার করা যাবে খুব চমৎকারভাবে।


৩. সাধারণত বেশিরভাগ রান্না করা হয় সয়াবিন তেলে। এই তেলের পরিবর্তে অলিভ অয়েল ব্যবহারে খাবারের স্বাদে ভিন্নতা আসবে। যা পেঁয়াজের অনুপস্থিতিকে অনেকটাই ম্লান করে দিবে।


৪. সাধারণত চায়নিজ ঘরানার খাবারেই বেল পেপার কিংবা ক্যাপসিকাম ব্যবহার করা হয়ে থাকে। কিন্তু দেশীয় খাবারেও ক্যাপসিকাম খাবারের স্বাদ বাড়াতে ব্যবহার করা যায় খুব চমৎকারভাবে। ভাজি, মাছ বা মাংসের ঝোলে ক্যাপসিকামের ঝাঁঝালো স্বাদ ও গন্ধ দারুণ মানিয়ে যাবে।


৫. মাংস কিংবা মাছের ঝোল ঘন করতে ও মাছ-মাংসের বাজে গন্ধকে দূর করতে পেঁয়াজ ব্যবহার করা হয় রান্নায়। কিন্তু পেঁয়াজ ছাড়াও এই কাজটি করে দেবে কাঁচা পেঁপে বাটা। রান্নায় পরিমাণমতো পেঁপে বাটা ব্যবহারে মাছ-মাংসের আঁশটে গন্ধ দূর হওয়ার সঙ্গে ঝোলও ঘন হবে।


৬. স্বাদের ব্যাপারে যদি বেশি চিন্তা হয় তবে জেনে রাখুন, রান্নায় টমেটো বাটার ব্যবহার খুব সহজেই যেকোন খাবারকে সুস্বাদু করে তুলবে। যেকোন ধরনের খাবার রান্নাতেই টমেটো মানিয়ে যায়। তাই টমেটো ব্যবহারে দ্বিতীয়বার ভাবার কোন প্রয়োজন নেই।


৭. বহু ধরনের হয়ে থাকে আমাদের দেশীয় মসলা, যার মাঝে খুব অল্প কিছুই ব্যবহার করা হয় নিত্যদিনের খাবার তৈরিতে। সেক্ষেত্রে নতুন মসলার ব্যবহার সম্পর্কে জানতে হবে। নতুন শুকনো মসলার ব্যবহার খাবারে ভিন্ন গন্ধ ও স্বাদ যোগ করবে।

Comments

নিচের ঘরে আপনার মতামত দিন

')