bangladesh
 10 Feb 18, 07:41 AM
 99             0

গফরগাঁওয়ে এক জামায়াত নেতার খপ্পরে পড়ে অর্ধশত এসএসসি পরীক্ষার্থীর ভবিষ্যত অনিশ্চিত

গফরগাঁওয়ে এক জামায়াত নেতার খপ্পরে পড়ে অর্ধশত এসএসসি পরীক্ষার্থীর ভবিষ্যত অনিশ্চিত

নিউজ ডেস্কঃ ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে আবারো সাবেক জামায়াত নেতা ও রৌহা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মারূফ আহমেদের ফাঁদে পড়ে প্রায় অর্ধশতাধিক এসএসসি পরীক্ষার্থীর প্রবেশপত্র না পাওয়ায় অনুষ্ঠিতব্য এসএসসি পরীক্ষা দেওয়া অনিশ্চিত হয়ে পরেছে। জানা যায়,উপজেলার রৌহা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মারূফ আহমেদ উথুরী নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ১৬ জন সহ বিভিন্ন বিদ্যালয়ের প্রায় অর্ধশতাধিক চলতি এসএসসি পরীক্ষার্থীর ফরম ফিলাপ করায় তার বিদ্যালয় থেকে। প্রতি শিক্ষার্থীর কাছ থেকে নেওয়া হয় ২ হাজার ৫০০ টাকা করে। কিন্তু উথুরী নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ১৬জন পরীক্ষার্থীসহ কোন পরীক্ষার্থীর প্রবেশপত্র আসেনি।

উথুরী গ্রামের মিম, জান্নাত, শামছুন্নাহার, স্বর্ণা, ধামাইল গ্রামের সজিব, হাজেরা ও ঝুমুর জানায়, উথুরী নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ইয়াসমিন সুলতানা পপির মাধ্যমে রৌহা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণ করি। কিন্তু আমরা কেউ পরীক্ষার প্রবেশপত্র পাইনি। আমরা পরীক্ষা দিতে পারবো কিনা জানিনা। কোন শিক্ষকেরও খোঁজ পাচ্ছিনা। সকলেই মোবাইল ফোন বন্ধ করে রেখেছেন। আমরা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা স্যারের কাছে যাওয়ার পর তিনি বলেছেন বিষয়টি সম্পর্কে খোঁজ নিয়ে দেখতে হবে। উথুরী নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ইয়াসমিন সুলতানা পপির মোবাইল ফোন বন্ধ থাকায় তার বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি। রৌহা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক উপজেলা জামায়াতে ইসলামির সদস্য মারূফ আহমেদ মোবাইল ফোন বন্ধ রাখায় বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা বেলায়েত হোসেন বলেন,প্রতি বছরই মারুফ আহমেদ এই অপকর্মটা করে। দেখি এইসব শিক্ষার্থীদের জন্য কি করা যায়। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ডাঃ শামীম রহমান বলেন, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য বলা হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ডাঃ শামীম রহমান বলেন,উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য বলা হয়েছে। উল্লেখ্য,প্রতি বছর এসএসসি পরীক্ষার সময় সাবেক জামায়াত নেতা রৌহা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মারূফ আহমেদ এই রকম অপকর্ম করলেও তার বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নেওয়া হয়না।

Comments

নিচের ঘরে আপনার মতামত দিন

')