bangladesh
 07 Sep 19, 08:13 PM
 19             0

গোপালগঞ্জে এক ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে শিক্ষককে পেটানোর অভিযোগ ॥

গোপালগঞ্জে এক ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে শিক্ষককে পেটানোর অভিযোগ ॥

নিউজ ডেস্কঃ গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ার কান্দি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান উত্তম কুমার বাড়ৈর বিরুদ্ধে গজালিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক অমূল্য রতন হালদারকে পিটিয়ে জখম করার অভিযোগ উঠেছে। শুক্রবার (০৬ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় উপজেলার কান্দি ইউনিয়নের ধারাবাশাইল বাজারে এ ঘটনা ঘটে। শিক্ষক অমূল্য রতন হালদার কান্দি ইউনিয়নের গজালিয়া গ্রামের মহেন্দ্রলাল হালদারের ছেলে। বর্তমানে তিনি কোটালীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি রয়েছেন। জানা যায়, বৃহস্পতিবার (০৫ সেপ্টেম্বর) উপজেলার মাচারতারা পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয়ের সবুজ ঘরামী নামে দশম শ্রেণির এক ছাত্র ক্লাসে পড়া না পারার কারণে গণিত শিক্ষক আশীষ চন্দ্র বড়াল মারধর করেন। ঘটনাটি সবুজ তার বাবা সুশীল ঘরামীকে জানালে তিনি ওই বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ইউপি চেয়ারম্যান উত্তম কুমার বাড়ৈর স্ত্রী জেলা পরিষদ সদস্য রীনা রাণী মণ্ডলকে জানান।

বিষয়টি নিয়ে শুক্রবার (০৬ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় ধারাবাশাইল বাজারে ইউপি চেয়ারম্যান উত্তম কুমার বাড়ৈ ও ওই স্কুলের প্রধান শিক্ষক নারায়ণ চন্দ্র হালদারের ভাই গজালিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক অমূল্য রতন হালদারের সঙ্গে কথাকাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে চেয়ারম্যান উত্তম কুমার বাড়ৈ ও তার ভাই মনি বাড়ৈ শিক্ষক অমূল্য রতন হালদারকে মারধর করেন। এ বিষয়ে জানতে চাইলে ইউপি চেয়ারম্যান উত্তম কুমার বাড়ৈ বলেন, আমি শিক্ষক অমূল্য হালদারকে মারধর করিনি। এছাড়া অমূল্য রতন হালদারের ভাই মাচারতারা পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নারায়ণ চন্দ্র হালদার বিদ্যালয়টিতে দুর্নীতির আখড়ায় পরিণত করেছে। কোটালীপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ লুৎফর রহমান বলেন, শিক্ষকের গায়ে হাত দেওয়াটা ন্যাক্কারজনক ঘটনা। তবে উভয়পক্ষ থেকেই অভিযোগ পেয়েছি। তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments

নিচের ঘরে আপনার মতামত দিন

')