bangladesh
 04 Apr 20, 11:53 PM
 208             0

কিছুক্ষণ পর দরজার সামনে এই ব্যাগগুলো খুঁজে পেলে কেমন অনুভূতি হতে পারে?

কিছুক্ষণ পর দরজার সামনে এই ব্যাগগুলো খুঁজে পেলে কেমন অনুভূতি হতে পারে?

চুলকাঠি ইয়ুথ সোসাইটির উদ্যোগে চুলকাঠি ও তার আশেপাশের এলাকার কিছু নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারের মাঝে খাদ্য সহায়তা প্রদান করা হয়। খাদ্য সামগ্রীর মধ্যে রয়েছে- চাল, ডাল, আলু, পেয়াজ, তেল, লবন,মিস্টি কুমড়া, ডিম ও হাত ধোয়ার সাবান।

করোনা পরিস্থিতিতে সারাদেশে জনসাধারনের চলাচল সীমিত করা হয়েছে। একান্ত প্রয়োজন ছাড়া কেউ ঘর থেকে বের হচ্ছে না। যার ফলে কর্মহীন অবস্থায় মানবেতর জীবনযাপন করছেন দীনমজুরসহ খেটে খাওয়া মানুষেরা। পরিবার পরিজন নিয়ে খেটে খাওয়া এসব মানুষ খুব কষ্টে জীবন কাটাচ্ছেন।এই অবস্থায় চুলকাঠি ইয়ুথ সোসাইটির উদ্যোগে এসকল খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়।
বিতরনের ধরনও ছিল একটু অন্যরকম। সন্ধ্যার পর থেকে সীমিত আকারে স্বেচ্ছাসেবকের মাধ্যমে বিভিন্ন বাড়ি বাড়ি গিয়ে বাড়ির দরজার সামনে খাদ্য সামগ্রী ভর্তি একটি ব্যাগ রেখে চলে আসা হয়। এ বিষয়ে চুলকাঠি ইয়ুথ সোসাইটির সভাপতি জাকারিয়া হোসাইন শাওন বলেন "কিছুক্ষণ পর দরজার সামনে এই ব্যাগগুলো খুঁজে পেলে কেমন অনুভূতি হতে পারে? না, ভিক্ষা নয়, প্রতিবেশীর পাশেই দাঁড়িয়েছি।

ভীড় এড়াতে ঘরের দুয়ারে রাতের অন্ধকারে পৌঁছে দিয়েছি খাবারের ব্যাগগুলো। নিম্ন মধ্যবিত্ত এই পরিবারগুলো কোনোদিন লাইনে দাঁড়াবে না, তাঁদের সে আত্ম সম্মানবোধকে আমরা সম্মান জানাতে চেয়েছি এভাবে কাজ করে।"এ কাজে সহায়তা করেন চুলকাঠি ইয়ুথ সোসাইটির প্রচার সম্পাদক সাকিব হাসান জনি,চয়ন দেবনাথ, আব্দুল্লাহ আল মামুন, ইহাদ প্রমুখ

উল্লেখ্য করোনা মোকাবেলায় চুলকাঠি ইয়ুথ সোসাইটির স্বেচ্ছাসেবকরা বেশ কিছুদিন ধরেই কাজ করে যাচ্ছেন, এর মধ্যে চুলকাঠি বাজারের সব কটি প্রবেশদ্বারে হাত ধোয়ার সাবান ও পানির ব্যবস্থা করা, সম্পূর্ণ বাজারে জীবাণুনাশক ছিটানো, বাজারে ঢোকার সময় জীবাণুনাশক স্প্রে করে ঢোকা, মাস্ক বিতরন এবং লিফলেট দিয়ে জনসচেতনতা তৈরি করা।

Comments

নিচের ঘরে আপনার মতামত দিন

')