জীবনযাপন
 17 Jun 17, 10:22 AM
Print
 188             0

যে খাবারগুলো খেলে পুরুষের সন্তান জন্ম দেওয়ার ক্ষমতা কমে যায়

যে খাবারগুলো খেলে পুরুষের সন্তান জন্ম দেওয়ার ক্ষমতা কমে যায়

নিউজ ডেস্কঃ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার রিপোর্ট অনুসারে গত ২০ বছরে সারা বিশ্বে ইনফার্টিলিটিতে আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় দ্বিগুণ হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। যার মধ্যে প্রায় ৪০ শতাংশই পুরুষ। শুধু তাই নয়, এই সংখ্যা ক্রমশ বাড়েই চলেছে।সম্প্রতি "হু" এর প্রকাশ করা একটি রিপোর্ট বলছে, বর্তমানে সারা বিশ্বে ইনফার্টিলিটিতে আক্রান্ত দম্পতির সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬০-৮০ মিলিয়ানে। এক্ষেত্রে আমাদের দেশের অবস্থাও যে খুব একটা আশাপ্রদ, তা না যদিও। এদেশেও ক্রমশ চিত্রটা ভয়ঙ্কর হয়ে উঠছে। আর সবচেয়ে ভয়ের বিষয়টা কী জানেন? স্বাস্থ্য সম্পর্কিত কারণ ছাড়াও কিছু খাবারের কারণেও এমন সমস্যা আরও বেশি মাত্রায় বৃদ্ধি পাচ্ছে, আর এ সম্পর্কে প্রায় সিংহভাগেরই কোনও ধরণা নেই। ফলে অজান্তেই মারাত্মক ক্ষতি হয়ে যাচ্ছে।একাধিক গবেষণার পর কিছু খাবারকে এড়িয়ে চলার পরামর্শ দিয়েছেন চিকিৎসকেরা। তাদের মতে এই সব খাবার নিয়মিত খেলে পুরুষদের শরীরে এমন কিছু নেতিবাচক পরিবর্তন হয়, যার ফলে ধীরে ধীরে বাচ্চা হওয়ার সম্ভাবনা কমে যায়। তাই বাবা হওয়ার ইচ্ছা থাকলে এইসব খাবার থেকে দূর থাকাই বাঞ্জনীয়।
এক্ষেত্র যে খাবারগুলো এড়িয়ে চলতে হবে, সেগুলি হল...

কোল্ড ড্রিঙ্ক;একাধিক গবেষণা একথা প্রমাণ করেছে, নিয়মিত কোল্ড ড্রিঙ্ক পান করলে স্পার্ম কাউন্ট চোখে পরার মতো কমে যেতে থাকে। ফলে এক সময় আসে যখন বাবা হওয়ার ক্ষমতাটাই চলে যায়। তাই এখন থেকে তেষ্টার সময় গলা ভেজাতে কোল্ড ড্রিঙ্কের পরিবর্তে জুস খাওয়া শুরু করুন। দেখবেন ক্ষতি হবে কম, উপকার পাবেন বেশি।

প্রসেসড মিট বা প্রক্রিয়াজাত মাংস;প্রক্রিয়াজাত মাংস খাওয়া তো প্রায় রেওয়াজে পরিণত হয়েছে। এমনটা হবে নাই বা কেন বলুন। অফিসের চাপে এখন আর কারও হাতেই রান্না করার সময় নেই। তাই অগত্যা এমন ধরনের খাবারেই ফ্রিজ ভরাতে বাধ্য হচ্ছে অনেকে। কিন্তু তারা জানেন না এমন খাবার খাওয়ার কারণে শরীরের কতটা ক্ষতি হচ্ছে। ২০১৪ সালে হার্ভাড বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক একটি পরীক্ষা চালিয়েছিলেন। তাতে দেখা গিয়েছিল প্রক্রিয়াজাত মাংস খেলে স্পার্ম কাউন্ট প্রায় ৩০ শতাংশ কমে যায়। আর এমনটা হলে বন্ধ্যাত্বের সমস্যা যে আর দূরে থাকে না, সে কথা তো বলাই বাহুল্য।

অ্যালকোহল;বেশি হলে তো কোনও সুযোগই নেই। কিন্তু অল্পতেও মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে। কারণ অ্যালকোহল শরীরে প্রবেশ করা মাত্র নানাবিধ ক্ষতি সাধন করে থাকে। যার মধ্যে অন্যতম হল স্পার্ম কাউন্ট কমিয়ে দেওয়া। তাই এবার থেকে যখন পানীয়র গ্লাস হাতে আয়েশ করবেন, তখন একবার ভাববেন এমনটা করাতে আপনার ভবিষ্যৎ অন্ধকার হয়ে যাচ্ছে না তো।

চিজ;২০১৩ সালে হিউমেন রিপ্রোডাকশনের উপর করা এক গবেষণা অনুসারে দীর্ঘ দিন ধরে চিজ এবং ফুল ফ্যাট মিল্ক খেলে স্পার্ম কাউন্ট অনেক বেশি কমে যায়। তবে তাই বলে দুধ খাওয়া বন্ধ করবেন না যেন। শুধু ফুল ফ্যাট মিল্কের বিকল্প কিছু একটা খুঁজে নিলেই চলবে।

Comments

নিচের ঘরে আপনার মতামত দিন